Share |

কমরেড মসুদ আহমদের পিতৃবিয়োগ : জানাজা মঙ্গলবার

লণ্ডন, ৮ জানুয়ারি : বাংলাদেশের কমিউনিস্ট পার্টির নেতা ও যুক্তরাজ্য উদীচীর সাবেক সহ-সভাপতি, কমরেড মসুদ আহমদের পিতা কমিউনিটির বিশিষ্ট মুরব্বী আলহাজ্ব মোহাম্মদ হাতিম ইন্তেকাল করেছেন। ইন্নালিল্লাহি ও ইন্নাইলাইহি রাজেউন। গত শুক্রবার সকালে তিনি তাঁর বার্মিংহামস্থ বাসভবনে শেষ নি:শ্বাস ত্যাগ করেন। তাঁর বয়স হয়েছিলো ৯৭ বছর। 
তিনি স্ত্রী, ৩ পুত্র ২ মেয়ে ও নাতি-নাতনিসহ বহু গুণগ্রাহী রেখে গেছেন।  হাসপাতাল থেকে মরদেহ ছাড় করা সাপেক্ষে আগামী মঙ্গলবার বার্মিংহামের সেন্ট্রাল মসজিদে জোহরের নামাজের পর মরহুমের নামাজে জানাজা অনুষ্ঠিত হবে জানিয়েছেন মসুদ আহমেদ। এরপর তাঁকে হ্যাণ্ডওয়ার্থ মুসলিম কবরস্তানে দাফন করা হবে। সাপ্তাহিক পত্রিকার পক্ষ থেকে প্রধান সম্পাদক মোহাম্মদ বেলাল আহমদ মসুদ আহমদের পরিবারের প্রতি সমবেদনা জ্ঞাপণ করে মরহুমের রূহের মাগফেরাত কামনা করেছেন।
এদিকে যুক্তরাজ্য সিপিবি’র সভাপতি কমরেড আহমেদ জামান, সাধারণ সম্পাদক কমরেড নিসার আহমেদ; বাংলাদেশ উদীচী শিল্পী গোষ্ঠী, যুক্তরাজ্য সংসদের সভাপতি হারুনর রশিদ ও সাধারণ সম্পাদক শাহাব আহমদ বাচ্চু; বাংলাদেশী ওয়ার্কার্স কাউন্সিলের আহবায়ক আবেদ আলী আবিদ ও সদস্যসচিব শাহরিয়ার বিন আলী এবং বাংলাদেশ যুব ইউনিয়ন যুক্তরাজ্য শাখার সভাপতি ইফতেখারুল হক পপলু এবং সাধারণ সম্পাদক নাসরিন আহমদ মঞ্জুরি এক যুক্ত বিবৃতিতে কমরেড মসুদ আহমদের পিতার মৃত্যুতে গভীর শোক প্রকাশ করেছেন। নেতৃবৃন্দ মরহুমের বিদেহী আত্মার শান্তি কামনা করে তাঁর স্বজনদের প্রতি সমবেদনা জ্ঞাপন করেছেন।
উল্লেখ্য, মোহাম্মদ হাতিম ১৯৫৮ সালে যুক্তরাজ্যে এসে বার্মিংহামে বসবাস শুরু করেন। তিনি দীর্ঘদিন ব্রিটিশ ডাক বিভাগে কাজ করে অবসরে যান। কমিউনিটির বিভিন্ন সামাজিক কর্মকাণ্ডে ছিলেন সক্রিয়।
মসুদ আহমেদ তাঁর পিতার রূহের মাগফেরাতের জন্য সকলের দোয়া কামনা করেছেন। সংবাদ বিজ্ঞপ্তি