Share |

সিলেটে মইন উদ্দিন মন্জুর উপর হামলার প্রতিবাদে লণ্ডনে সাংবাদিক সমাবেশ

সন্ত্রাসীদের বিরুদ্ধে অবিলম্বে ব্যবস্থা নেওয়ার আহবান
দূতাবাস, পুলিশ ও বিভিন্ন মানবাধিকার সংগঠনে চিঠি প্রদানের সিদ্ধান্ত
লণ্ডন, ৩০ মে: চ্যানেল এস সিলেট কার্যালয়ের প্রধান প্রতিবেদক সাংবাদিক মইন উদ্দিন মন্জুর উপর হামলার প্রতিবাদে লণ্ডনে অনুষ্ঠিত সাংবাদিক সমাবেশে সন্ত্রাসীদের বিরুদ্ধে অবিলম্বে ব্যবস্থা নেওয়ার আহবান জানানো হয়েছে। গত ২৭শে মে লণ্ডন বাংলা প্রেসক্লাবে আয়োজিত প্রতিবাদ সভায় এ আহবান জানানো হয়। সভায় বক্তারা সাংবাদিক মঈনউদ্দিন মন্জুর উপর আঘাতকে গণমাধ্যমের স্বাধীনতার উপরে আঘাত বলে অভিহিত করে জড়িতদের দ্রুততম সময়ের মধ্যে গ্রেফতারের আহবান জানান।
এছাড়া এ ঘটনা জানিয়ে এবং?সুষ্ঠু বিচারের দাবীতে লণ্ডনে বাংলাদেশ দূতাবাস, ঢাকায় ব্রিটিশ দূতাবাস, সিলেটের
পুলিশ প্রশাসন ও বিভিন্ন মানবাধিকার সংগঠনে চিঠি প্রদানের সিদ্ধান্ত হয় সভায়। সাংবাদিক আ স ম মাসুম ও আহাদ চৌধুরী বাবুর উদ্যোগে লণ্ডন বাংলা প্রেসক্লাবের প্রতিষ্ঠাতা সভাপতি মহিব উদ্দিন চৌধুরীর সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত সভায় বক্তব্য রাখেন সাংবাদিক নবাব উদ্দিন, নজরুল ইসলাম বাসন, সংবাদ পাঠিকা ডা. জাকি রেজওয়ানা আনোয়ার, লণ্ডন বাংলা প্রেসক্লাবের সভাপতি মোহাম্মদ এমদাদুল হক চৌধুরী, সাধারণ সম্পাদক তাইসির মাহমুদ, সাংবাদিক সৈয়দ আনাস পাশা, শামসুল আলম লিটন, ব্রিটিশ বাংলাদেশ চেম্বার অব কমার্সের ফাইন্যান্স ডিরেক্টর মনির আহমদ, সাংবাদিক আব্দুল মুনিম জাহেদী ক্যারল, মুহাম্মদ জুবায়ের, কামাল মেহেদী, মিসবাহ জামাল, বদরুজ্জামান বাবুল, সাঈম চৌধুরী, এমরান আহমেদ, আব্দুল কাইয়ূম, নাজমুল হোসেন, সাবেক কাউন্সিলার শাহ সুহেল, সাংবাদিক পলি রহমান, আলাউর রহমান শাহীন, আনিসুর রহমান আনিস, হেফাজুল করিম রাকিব, ইব্রাহিম খলিল, আহাদ আহমেদ, আকরাম হোসেন, মোহাম্মদ খান, জি আর সোহেল, রেজাউল করিম মৃধা হাসনাত খান, মাহবুব আলী খানসূর, আব্দুর রহিম রন্জু, এনামুল হক চৌধুরী, মারুফ হোসেন প্রমুখ।
এর আগে সিলেটে সাংবাদিক মঈন উদ্দিন মঞ্জুর ওপর হামলার নিন্দা জানিয়ে সন্ত্রাসীদের অবিলম্বে বিচারের আওতায় আনার দাবী জানায়?লণ্ডন বাংলা প্রেস ক্লাব। গত ২৬ মে বৃহস্পতিবার গণমাধ্যমে প্রদত্ত এক বিবৃতিতে ক্লাবের সভাপতি এমদাদুল হক চৌধুরী, সেক্রেটারি তাইসির মাহমুদ ও ট্রেজারার সালেহ আহমদ বলেন, পেশাগত দায়িত্ব পালনকালে একজন সাংবাদিকের ওপর এমন অতর্কিত, অনাকাঙিক্ষত হামলার ঘটনা দেশে-বিদেশে সাংবাদিক ও সচেতন মহলকে বিস্মিত করেছে।
লণ্ডন বাংলা প্রেস ক্লাবের বিবৃতিতে বলা হয়, ইতোমধ্যে হামলাকারিদের নাম উল্লেখ করে মঈন উদ্দিন মঞ্জু মামলা করেছেন। মূল আসামী শনাক্ত হয়েছে বলে সংবাদ মাধ্যমে খবর এসেছে। এরপরও অভিযুক্ত হামলাকারীকে গ্রেফতারে বিলম্বের কারণ আমাদের বোধগম্য নয়। সাংবাদিক মঞ্জুর ওপর হামলাকারীদের বিচারের আওতায় নিয়ে আসার দাবীতে সিলেট ও লণ্ডনে সাংবাদিকরা ঐক্যবদ্ধ। আমরা মঈন উদ্দিন মঞ্জুকে আশ্বস্ত করে বলতে চাই- আপনি একা নন, সাংবাদিক সমাজ আপনার সঙ্গে আছেন।
উল্লেখ্য, গত ২৩ মে সোমবার বিকেল সাড়ে ৫টার দিকে সিলেট শহরের চৌহাট্টায় ছাত্রলীগ-ছাত্রদলের মধ্যে ধাওয়া-পা?া ধাওয়ার ঘটনার সময়সংবাদ সংগ্রহের জন্য ঘটনাস্থলে গেলে সন্ত্রাসীরা সাংবাদিক মঈন উদ্দিন মঞ্জুর ওপর অতর্কিত হামলা চালায়। তাঁর হাতে ও পায়ে রড দিয়ে আঘাত করা হয়। গুরুতর জখম অবস্থায় সহকর্মী সাংবাদিকরা তাঁকে সিলেট ওসমানী মেডিকেল হাসপাতালে ভর্তি করেন। চিকিৎসা নিয়ে হাসপাতাল থেকে ঘরে ফিরলেও তাঁর শারিরীক অবস্থা এখনও স্বাভাবিক নয় বলে জানা গেছে। সংবাদ বিজ্ঞপ্তি